আমেরিকা ও ইউরোপের চাপিয়ে দেওয়া সিদ্ধান্ত শেখ হাসিনা গ্রহণ করেননি, এটাই বড় সাফল্য!

  বাংলাদেশের কথা ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ সন্ধ্যা ০৭:২৮, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০

আমেরিকা ও ইউরোপের চাপের কাছে শেখ হাসিনা মাথা নত করেননি। তাদের চাপিয়ে দেওয়া সিদ্ধান্ত তিনি গ্রহণ করেননি। এটা শেখ হাসিনার একটা সাফল্য।

শিক্ষাবিদ ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক অধ্যাপক আবুল কাসেম ফজলুল হক বিএনপির সমালোচনা করে বলেছেন, বিএনপি রাজনৈতিক দল হয়ে ওঠেনি, হয়ে উঠবে বলেও মনে হয় না। কারণ গত ২০ বছরে তাদের কোনও রাজনৈতিক বক্তব্য নেই। 

তিনি বলেন, গত ৭ জানুয়ারি যে নির্বাচন হলো, সেখানে স্বাভাবিক রাজনীতির বৈশিষ্ট্য অতি অল্প ছিল। সেটা ৫ ভাগের বেশি হবে না। আর ৯৫ ভাগ সাজানো নির্বাচন অনুষ্ঠিত ও ফলাফল ঘোষিত হয়েছে।

শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় প্রেস ক্লাবের জহুর হোসেন চৌধুরী হলে বাংলাদেশ গণমুক্তি পার্টি (বিজেপি) কেন্দ্রীয় পরিষদ আয়োজিত ‘বাংলাদেশের রাজনীতি কোন পথে?’ শীর্ষক আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

বাংলাদেশ গণমুক্তি পার্টির এই উপদেষ্টা ও তাত্ত্বিক নেতা বলেন, আমাদের জাতীয় জীবনে বড় যেসব ঘটনা ঘটেছে, তাতে আওয়ামী লীগের নেতৃত্ব ছিল। কিন্তু সেই আওয়ামী লীগকে আজ আওয়ামী লীগ বলা কঠিন। দলটি এখন হয়ে গেছে শেখ হাসিনার নিয়ন্ত্রণাধীন। দলের সব সিদ্ধান্ত শেখ হাসিনার হাতে। আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী যারা বিভিন্ন সাংগঠনিক ক্যাপাসিটিতে আছেন, তারা সব ক্ষমতা শেখ হাসিনার হাতে তুলে দেন। শেখ হাসিনা সিদ্ধান্ত নেন। এই ধরনের মানসিকতা গণতন্ত্রের পরিচায়ক নয়।

আওয়ামী লীগের জোটসঙ্গীদের বিষয়ে তিনি বলেন, এবার আওয়ামী লীগ যেসব দলের সঙ্গে সমঝোতা করেছে এবং তাদের যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, সেটি রক্ষা করেনি। জাতীয় পার্টি, হাসানুল হক ইনু, রাশেদ খান মেনন—তাদের কিছু সিট ছেড়ে দেবে বলেছিল। কিন্তু ইলেকশনে দেখা গেলো, সেই সিদ্ধান্ত আওয়ামী লীগ রক্ষা করেনি।

এই রাজনৈতিক বিশ্লেষক বলেন, আওয়ামী লীগের বাইরে নেতা বলতে যেটা বোঝায়, সেটা অন্য কোনও দলের মধ্যে নেই; বামপন্থীদের মধ্যেও নেই, ডানপন্থীদের মধ্যেও নেই। এই বাস্তবতায় রাজনীতির শূন্য কয়েকটি দল আছে, তারা দলাদলি করছে। এই দলাদলির মধ্যে অন্তত শেখ হাসিনা যতকাল সক্রিয় আছেন, ততকাল অন্য কোনও নেতার আত্মপ্রকাশের সময় ও সুযোগ কোনোটাই নেই।

বিএনপি রাজনীতির প্রসঙ্গে তিনি বলেন, তারেক রহমান লন্ডনে বসে টেলিফোন যে সিদ্ধান্ত দেন, বিএনপি সেটা কার্যকর করে। এখানে তারেক রহমানের সঙ্গে যার সম্পর্ক যত বেশি, তারা তত বড় অবস্থানে আছেন। রাজনীতিতে উত্তরাধিকার ও পরিবারতন্ত্র সম্পূর্ণ গণতন্ত্রের বিরুদ্ধে ধারণা। বিএনপি তো রাজনৈতিক দল হয়ে ওঠেনি, হয়ে উঠবে বলেও মনে হয় না। কারণ গত ২০ বছরে তাদের কোনও রাজনৈতিক বক্তব্য নেই। তারা উত্তরাধিকার ও পরিবারতান্ত্রিক রাজনীতিতে চলে গেছে। জাতীয় পার্টিরও একই অবস্থা।

অধ্যাপক আবুল কাশেম ফজলুল হক বলেন, যুক্তরাষ্ট্র নির্বাচনের অন্তত ছয় মাস আগে শেখ হাসিনা ও বাংলাদেশের ওপর চাপ সৃষ্টি করে বলেছে, বাংলাদেশে মৌলিক অধিকার নেই। এ অবস্থায় সঠিক নির্বাচন হতে পারে না। নানা কৌশলে তারা অনেক সমালোচনা করেছে। সব চাপ শেখ হাসিনা সামলে নিয়েছেন। আমাদের স্বীকার করতে হবে আমেরিকা ও ইউরোপের চাপের কাছে শেখ হাসিনা মাথা নত করেননি। তাদের চাপিয়ে দেওয়া সিদ্ধান্ত তিনি গ্রহণ করেননি। নিজের বিবেচনা অনুযায়ী আওয়ামী লীগের চার-পাঁচ জন লোকের সঙ্গে পরামর্শ করে যেভাবে কাজ করেছেন, এটা শেখ হাসিনার একটা সাফল্য।

আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য দেন বাংলাদেশ গণমুক্তি পার্টির আহ্বায়ক এম এ আলিম সরকার প্রমুখ।

Share This Article


নাশকতার ১২ মামলায় অন্তর্বর্তীকালীন জামিন পেলেন ইশরাক

হাসপাতালে ভর্তি রফিকুল ইসলাম মিয়া

বিএনপি ক্ষমতায় গেলে গোটা বাংলাদেশ গিলে খাবে : ওবায়দুল কাদের

গ্রামীণ ফোনের ইনকামিং কল চার্জ বন্ধ করলেও বিদেশী বন্ধুদের দ্বারা সরকারকে থ্রেট দিয়েছিলেন ইউনুস!

মোহাম্মদ নাসিমের জন্মদিন আজ

আগুনের ঘটনায় বিএনপি-জামায়াতকে সন্দেহের বাইরে রাখার সুযোগ নেই: শেখ পরশ

বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি করার অনুমতি চেয়ে হাইকোর্টে রিট

হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে খালেদা জিয়াকে

একাত্তরের মতো ভারত এবারও আমাদের পাশে দাঁড়িয়েছে: কাদের

৯ বছর পর সোনারগাঁও হোটেলে জামায়াতের ইফতার আজ

দল চাঙ্গা করতে উপজেলা নির্বাচনে যাচ্ছে জামায়াত

মহান স্বাধীনতা দিবসে আওয়ামী লীগের কর্মসূচি