পাঁচ মাসের সংসার, পরকীয়া কেড়ে নিল প্রান

  বাংলাদেশের কথা ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ সকাল ১০:৪৪, সোমবার, ৬ ডিসেম্বর, ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

নিউজ ডেস্কঃ রাজধানীর ডেমরায় চাম্পা আক্তার (২২) নামে এক গৃহবধূকে হত্যা করা হয়। পরে তার লাশ একটি হাসপাতালে ফেলে পালিয়ে যান স্বামী মামুন। ১ ডিসেম্বর রাতে চাম্পাকে শ্বাসরোধে খুন করেন মামুন।

পরে এ ঘটনায় নিহতের বাবা হজরত সরদার বাদী হয়ে ডেমরা থানায় মামুনের বিরুদ্ধে মামলা করেন। শনিবার নাটোরের সিংড়া থানা এলাকা থেকে মামুনকে গ্রেফতার করা হয়। মামুন প্রাথমিকভাবে হত্যায় দায় স্বীকার করেছেন বলে জানিয়েছেন ডেমরা থানার পরিদর্শক (অপারেশনস) সুব্রত কুমার পোদ্দার।

তিনি বলেন, চাম্পা ও মামুন চুক্তিভিত্তিক কাজ করা গার্মেন্টকর্মী ছিলেন। তারা ডেমরার পূর্ব বক্সনগর মাইনুদ্দীনের বাড়ির ভাড়াটিয়া ছিলেন। মামুনের বাড়ি নাটোরের সিংড়া থানার লাল বানু বেওয়ানায়। চাম্পার বাড়ি নওগাঁর আত্রাই থানার আম চন্দ্রবাটিতে। চাম্পা গত প্রায় আট বছর ধরে পরিবারের সঙ্গে থেকে গাজীপুরে একটি কারখানায় কাজ করতেন। বাবার অমতে পাঁচ মাস আগে মামুনের সঙ্গে বিয়ের পর তারা ডেমরায় বসবাস শুরু করেন। বিয়ের পর তারা দুজন স্থানীয় একটি গার্মেন্টে কাজ শুরু করেন। 

এ সময় অন্য একটি ছেলের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন চাম্পা। এক মাস আগে এ বিষয়ে মামুন অবগত হন। ১০ দিন আগে চাম্পা বাড়ি যাওয়ার কথা বলে বাড়ি না গিয়ে অন্য একটি ছেলের হাত ধরে অন্যত্র যেতে থাকেন, যা মামুন দেখে ফেলেন। ১ ডিসেম্বর রাতে রান্না শেষ করে পরকীয়ার বিষয়ে তারা আলোচনা শুরু করেন। এ সময় বাগ্বিতণ্ডার এক পর্যায়ে মামুন গলায় রশি পেঁচিয়ে চাম্পাকে শ্বাসরোধে হত্যা করেন। গতকাল মামুন আদালতে ১৬৪ ধারায় আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

বিষয়ঃ পরকীয়া

Share This Article


রোজার আগেই আমদানি করা হবে পেঁয়াজ

‘স্বাস্থ্যসেবা সহজলভ্য করতে সরকার নিরন্তর প্রয়াস চালাচ্ছে’

শাহজালালের তৃতীয় টার্মিনাল চালু হবে অক্টোবরে

সরকারের একার পক্ষে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ করা কঠিন, বললেন দীপু মনি

যুক্তরাষ্ট্রের উপসহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে বসেছে বিএনপি

আন্দোল‌নের না‌মে নাশকতার চেষ্টা ক‌রলে ক‌ঠোর হ‌স্তে দমন করা হ‌বে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত আছে বলেই দেশে উন্নয়ন হচ্ছে : প্রধানমন্ত্রী

বাঁ থেকে এলিন লাউবাকের, মাইকেল শিফার ও আফরিন আক্তার -ছবি : সংগৃহীত

সম্পর্ক এগিয়ে নিতে ঢাকায় মার্কিন প্রতিনিধি দল

২০২৩ সালে গ্রিসে বৈধতা পেয়েছে সাড়ে তিন হাজার বাংলাদেশি

ফলাফল চ্যালেঞ্জ করে এবার সুপ্রিম কোর্টে ইমরানের পিটিআই

তাপমাত্রা নিয়ে নতুন তথ্য আবহাওয়া অফিসের

এক শর্তে রোহিঙ্গাদের নাগরিকত্ব দেওয়ার প্রস্তাব জান্তা সরকারের