সকাল ০৯:৩১, বুধবার, ১৭ আগস্ট, ২০২২, ২ ভাদ্র

আফগানিস্তানের পরিস্থিতি নিয়ে উদ্বিগ্ন পুতিন

পুতিন-মোদির ফাইল  ফটো
পুতিন-মোদির ফাইল ফটো

অনলাইন ডেস্ক:
রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এখন ভারতে অবস্থান করছেন। ইতোমধ্যে তিনি ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে এক দফা বৈঠক করেছেন। এই বৈঠকে দুই দেশের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বিষয় ছাড়াও পুতিন আাফগানিস্তান নিয়ে কথা বলেছেন।

আফগানিস্তানের সংবাদ এজেন্সি পাজহোক নিউজের খবরে বলা হয়েছে, রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আফগানিস্তানের ক্রম অবনতিশীল অবস্থা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। বৈঠকে প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, সন্ত্রাসের বিরুদ্ধ লড়াইয়ের অর্থ- মাদক পাচারের বিরুদ্ধে এবং সংঘবদ্ধ অপরাধের বিরুদ্ধেও লড়াই করা।

ভারতের গণমাধ্যমে বলা হয়েছে, আফগানিস্তানে বর্তমান যে অবস্থা বিরাজ করছে পুতিন তা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।  রুশ প্রেসিডেন্ট বলেছেন, কাবুল যে অবস্থায় দাঁড়িয়েছে সেটা নিয়ে আমরা উদ্বিগ্ন না হয়ে পারি না।

এর আগে সোমবার ভারত ও রাশিয়ার মধ্যকার দ্বিপক্ষীয় বার্ষিক বৈঠক উপলক্ষে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন দিল্লি সফরে এসেছেন। পুতিন বলেছেন, ভারত একটি বড় শক্তি, দীর্ঘদিনের ও সময়ের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ বন্ধু। দুই দেশ জ্বালানি, মহাকাশ, প্রতিরক্ষা ও প্রযুক্তির মতো বৈচিত্র্যময় খাতে একসঙ্গে কাজ করছে। আগামী দিনে প্রতিরক্ষা, মাদক পাচার রোধ, সন্ত্রাসবাদ দমন, আফগানিস্তানে স্থিতিশীলতা ফেরানোসহ দ্বিপক্ষীয়, আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক নানা বিষয়ে একসঙ্গে কাজ করতে হবে।

আগস্টের শেষ দিকে আফগানিস্তান ত্যাগ করে মার্কিন বাহিনী। তার আগে ১৫ আগস্ট তালেবানের হাতে কাবুলের পতন হয়। এর মধ্য দিয়ে আফগানিস্তানের ক্ষমতা তালেবানের হাতে যায়, যুক্তরাষ্ট্রের ২০ বছরের আফগান যুদ্ধের সমাপ্তি ঘটে।

সেপ্টেম্বরের শুরুর দিকে আফগানিস্তানে অন্তর্বর্তী সরকার গঠনের ঘোষণা দেয় তালেবান। তবে তালেবানের এই সরকারকে এখনো আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় স্বীকৃতি দেয়নি। আন্তর্জাতিক সহায়তা বন্ধের মুখে আফগানিস্তানে এখন ভয়াবহ অর্থনেতিক সঙ্কট বিরাজ করছে।

বিশ্লেষকরা বলছেন,  আফগানিস্তানের ক্ষমতা তালেবানের হাতে যাওয়ায় ভারত সেখানে অবস্থান হারিয়েছে। এইক্ষেত্রে ভারতের চির প্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তান লাভবান হয়েছে। ভারত-রাশিয়ার মাধ্যমে তালেবানের সঙ্গে সম্পর্ক ঝালিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করবে। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমি পুতিন এবং ভারতের প্রেসিডেন্ট নরেন্দ্র মোদি উভয়ের জন্য আফগানিস্তান একটি সাধারণ (কমন ইন্টারেস্ট) স্বার্থের জায়গা।    

Share This Article


রান্নার সরঞ্জাম সরানোর নির্দেশ: মধ্যরাতে বিক্ষোভ খুবির ছাত্রীদের

গার্ডার দুর্ঘটনায় নিহতদের লাশ হস্তান্তর

পুরান ঢাকায় বহাল তবিয়তে দুই হাজার কেমিক্যাল প্রতিষ্ঠান

গাফিলতির মৃত্যু: সমাধানে আসে নানা সুপারিশ, নেই বাস্তবায়ন

ডলার নিয়ন্ত্রণে কমেছে বিলাসি পণ্য আমদানি!

ডলার অর্থায়নে কমলো সুদহার

নতুন ১২ ট্রাস্টি পেল নর্থ সাউথ

দুঃস্থদের মাঝে খাদ্যপণ্য বিতরণ করল শাহ্জালাল ইসলামী ব্যাংক

শুদ্ধাচার পুরস্কার প্রদান করেছে ইউসিবি

ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের পেটানোর ঘটনায় তদন্ত কমিটি

সিআইডি প্রধান হলেন মোহাম্মদ আলী মিয়া

যুক্তরাষ্ট্র চাইছে ইউক্রেনের দ্বন্দ্ব বাড়াতে: পুতিন

আলিয়া-কারিনা

আলিয়া অন্তঃসত্ত্বা, যা বললেন কারিনা...

ওয়াসার পানির শুল্ক নির্ধারণের ব্যাখ্যা চান হাইকোর্ট

ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের গাফিলতি পেয়েছে তদন্ত কমিটি