সকাল ০৮:০২, শুক্রবার, ১৯ আগস্ট, ২০২২, ৪ ভাদ্র

৭৪ সালের দুর্ভিক্ষের জন্য আমেরিকাকেই দায়ী করলেন মুক্তিযুদ্ধমন্ত্রী

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক
মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেছেন, আমেরিকা সরকার গত পরশুদিন যে কথা বলেছে এজন্য নিন্দা জানাই। তারা মুক্তিযুদ্ধের সময়ও সপ্তম নৌবহর পাঠিয়েছিল। একই সঙ্গে ১৯৭৪ সালের দুর্ভিক্ষের জন্যও তারা দায়ী ছিল।

সোমবার রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তীতে পতাকা মিছিল ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। 

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, আমেরিকা যা বলেছে এজন্য তাদের সম্পর্কে দুই-চারটা কথা বলতে হয়। তারা আমাদের মুক্তিযুদ্ধকে বানচাল করতে সে সময় সপ্তম নৌবহর পাঠিয়েছিল।  

তিনি আরও বলেন, বঙ্গবন্ধু নগদ টাকা পরিশোধ করে তাদের কাছ থেকে চাল ও গম কিনেছিলেন। কিন্তু সেই চাল-গম সময়মতো এসে পৌঁছায়নি চট্টগ্রাম বন্দরে। তিল তিল দুর্ভিক্ষ হয়েছিল ১৯৭৪ সালে। ২৭ হাজার মানুষ মারা গিয়েছিল। এ দুর্ভিক্ষের জন্য তারা দায়ী। পয়সা দিয়ে চাল-গম কিনলাম কিন্তু পেলাম না।

মন্ত্রী বলেন, বিরোধী দল আন্দোলনের নামে ২০১৭ রাস্তায় যখন মানুষ মারলো, বোমা ফাটালো, এটা মানবতাবিরোধী ছিল না তখন তাদের নীতিবাক্য কই ছিল। স্বাধীনতার পর তারা আমাদের বলেছিল বোটম লেস বাস্কেট, এখন তারা এসে দেখে যাক, বাস্কেট কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে উপচে পড়েছে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, ৭ মার্চে আমরা স্বাধীনতা পেয়ে গিয়েছি। এরপর কে কি বললো সেটা কোনো বিষয় না। বঙ্গবন্ধুর ডাকে কেউ সেদিন থেমে ছিলেন না। তেজগাঁও থানায় দুই কনস্টেবল অস্ত্র নিয়ে চলে এসেছিল যুদ্ধে। বঙ্গবন্ধুর ডাকে সারাদেশের মানুষ ঘুরে দাঁড়িয়েছিল বলেই নয় মাসে আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি।

তিনি বলেন, মুক্তিযুদ্ধে ভারতীয় ১৬ হাজার সৈনিক প্রাণ দিয়েছে সেটিও আমাদের মনে রাখতে হবে। এজন্য আমি বন্ধু প্রতীম দেশের প্রতি কৃতজ্ঞ।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক ড. খন্দকার বজলুল হক, ১৯৭১ সালের ১৭ এপ্রিল মুজিবনগরে বাংলাদেশ সরকারের মন্ত্রিসভাকে গার্ড অব অনার দেওয়া কর্মকর্তা বীর মুক্তিযোদ্ধা মাহাবুব উদ্দীন আহমদ বীরবিক্রম, স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শিল্পী বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক ড. নাসরীন আহমাদ, “যদি রাত পোহালে শোনা যেত বঙ্গবন্ধু মরে নাই” গানটির গীতিকার বীর মুক্তিযোদ্ধা হাসান মতিউর রহমান।

Share This Article


বঙ্গবন্ধুকে হত্যায় জিয়াউর রহমান জড়িত না থাকলে ঘাতকরা সাহস পেত না : ওবায়দুল কাদের

গার্ডার দুর্ঘটনায় শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণে আপত্তি নেই চীনের

দুর্ঘটনার পর নাম আসা ১০ জন গ্রেফতার

ডলারে ‘অতিরিক্ত মুনাফা’র কারণে এবার ৬ ব্যাংকের এমডিকে শোকজ

কমতে শুরু করেছে ডিমের দাম

স্বস্তিতে ডলার

ফিলিস্তিনকে সামরিক সহযোগিতা দিতে আগ্রহী রাশিয়া

ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ে সেরা দশে মুস্তাফিজ

সিন্ডিকেটের কারণে বাড়ছে ডিমের দাম

সীমানা পরিবর্তন নিয়ে বিতর্কে জড়াবে না ইসি

ফিটনেসবিহীন ক্রেনটি চালাচ্ছিল চালকের সহকারী: র‍্যাব

এবার শিরোপা জিতবে বার্সেলোনা: লেওয়ানডস্কি

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে সর্ববৃহৎ অর্থ বিলে স্বাক্ষর বাইডেনের

শিগগিরই ঢাকা-নিউইয়র্ক রুটে চলবে বিমানের ফ্লাইট

হঠাৎ অসুস্থ খালেদা জিয়া