আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যেই হামলা করা হয়েছে: রাব্বানী

  বাংলাদেশের কথা ডেস্ক
  প্রকাশিতঃ সন্ধ্যা ০৬:২৯, রবিবার, ২৬ ডিসেম্বর, ২০২১, ১১ পৌষ ১৪২৮
ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী
ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী

মাদারীপুর প্রতিনিধি: ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও ডাকসুর সাবেক জিএস গোলাম রাব্বানীকে কুপিয়ে জখম করা হয়েছে। মাদারীপুর রাজৈর উপজেলার ইশিবপুর ইউনিয়নের গাংকান্দি সরকারি বিদ্যালয় কেন্দ্রে তিনি হামলার শিকার হন।

রবিবার (২৬ ডিসেম্বর) ভোটগ্রহণ চলাকালীন ৭নং ওয়ার্ডের গাংকান্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে প্রতিপক্ষ মোশারফ মোল্লার লোকজন জাল ভোট দেওয়া চেষ্টা করছে। এমন খবর শুনে গোলাম রাব্বানী সেখানে গিয়ে প্রতিবাদ করলে মোশারফ মোল্লার ছেলে সোহেল মোল্লা রাব্বানীর ওপর চড়াও হয়। 

 

এক পর্যায়ে গোলাম রাব্বানীকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপ দেয়। এ সময় রাব্বানী ফিরাতে গেলে তার ডান হাতের দুইটি আঙ্গুল কেটে যায়। যেখানে আটটি সেলাই দিতে হয়েছে। বর্তমানে তিনি রাজৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি আছেন।

এ ঘটনায় গণমাধ্যমনকে গোলাম রাব্বানী বলেন, আমাকে হত্যার উদ্দেশ্যেই এ হামলা করা হয়েছে। নির্বাচনে ইশিবপুর, হাসানকান্দি ও গাংকান্দি শাখারপাড় কেন্দ্রসহ বিভিন্ন কেন্দ্রে জাল ভোট প্রদানসহ বিভিন্ন অনিয়ম প্রসঙ্গে অভিযোগ করা হলেও পুলিশ কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। এ ব্যাপারে মামলা করা হবে।

ইউপি নির্বাচনে ইশিবপুর ইউনিয়নে গোলাম রাব্বানীর মামা সালাহ উদ্দিন আহমেদ চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। যার পক্ষে তিনি পর্যবেক্ষক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।


রাজৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ সাদিক জানান, অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

Share This Article


ইভিএম প্রকল্প স্থগিত নিয়ে যা বললেন সিইসি

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা

২২তম রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের তফসিল আজ

সংসদে সার্বজনীন পেনশন বিল পাস

বুধবার পল্লবী স্টেশনে থামবে মেট্রোরেল

পিতৃপরিচয়হীন সন্তানের অভিভাবক হবেন মা: হাইকোর্ট

বাংলাদেশে মানবপাচারের অন্যতম কারণ প্রাকৃতিক দুর্যোগ: জাতিসংঘ

বইয়ে কোন বিষয়ে বিতর্ক বা ভুল থাকলে তা অবশ্যই পরিবর্তন করা হবে : শিক্ষামন্ত্রী

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের তফসিল বুধবার

গণ-অভ্যুত্থান দিবস আজ

বাংলাদেশের উন্নয়ন প্রকল্পগুলো পরিকল্পিত ও বিজ্ঞানভিত্তিক:অ্যাক্সেল ভ্যান ট্রটসেনবার্গ

মন্ত্রিসভার সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের হার ৭৬ দশমিক ৭৮ শতাংশ